• রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ০৯:৪২ পূর্বাহ্ন
  • English Version
Notice :
***শর্ত সাপেক্ষে সাংবাদিক নিয়োগ দিচ্ছে সংবাদ২৪**আগ্রহীরা সিভি পাঠান এই ইমেইলেঃinfo@shangbad24.com

ছেলে-মেয়ের গলাকেটে বাবার আত্মহত্যার চেষ্টা, মেয়ে নিহত

সংবাদ২৪ ডেস্ক
আপডেট বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০

রাজধানীর হাজারীবাগে ছেলে ও মেয়ের গলা কেটে হত্যার চেষ্টার পর নিজেও আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন বাবা। এই ঘটনায় সাত বছয় বয়সী মেয়ে রোজা নিহত হয়েছেন।

বুধবার বিকালে রাজধানীর হাজারীবাগের বটতলা এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে। দুই সন্তানের ওই পিতা মো. জাবেদ হাসান (৪৮)। পেশায় ব্যবসায়ী। পুলিশের প্রাথমিক ধারণা, পারিবারিক কলহের জেরে এই ঘটনা ঘটতে পারে। আহত ছেলে ও বাবা জাবেদ হাসান বর্তমানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তাদের অবস্থাও আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন চিকিৎসক।

ইডেনের সাবেক অধ্যক্ষ পারভীন হত্যার রায় ৪ অক্টোবর
যে কারণে ফাঁসির আসামি মিন্নি
চলন্ত ট্রেনে উঠতে গিয়ে প্রাণ হারালেন নারী
ঘটনার পর শিশুদের চাচা মেহেদী হাসান, চাচি ও মামাসহ পরিবারের সদস্যরা তাদের উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান।

সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক শিশু রোজাকে মৃত ঘোষণা করেন। চাচা মেহেদী হাসান জানান, বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে দু’শিশুর বাবা তার সন্তানদের হত্যার চেষ্টা চালিয়েছেন। তাদের স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া হয়েছিল। স্ত্রী বাসা থেকে বের হয়ে যান। পরে স্বামী এ হত্যাচেষ্টা চালিয়েছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

নিহত শিশু জারিন হাসান রোজার মা রিমা আক্তার জানান, ঘটনার সময় তিনি নিচে ছিলেন। ঘটনাটি দুই তলা ভবনের দ্বিতীয় তলায় ঘটে। চিৎকার শুনে ঘটনাস্থলে যান। তবে কী কারণে এ ঘটনা ঘটেছে তা তিনি কিছুই জানেননা বলে জানিয়েছেন।

ঢামেক হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ি ইনচার্জ পরিদর্শক মো. বাচ্চু মিয়া জানান, নিহত শিশু রোজার লাশ হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে। হাজারীবাগ থানার উপপরিদর্শক (এসআই) জানে আলম বলেন, হত্যাকাণ্ডের কারণ এখনও জানা যায়নি। কারণ অনুসন্ধান করা হচ্ছে।

হাজারীবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহা. সাজেদুর রহমান বলেন, পারিবারিক কলহ এবং অর্থসংকটের কারণে এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটতে পারে। নিজের ব্যবসা থাকলেও অনেক টাকা ঋণ করে দিশেহারা ছিলেন জাবেদ। ধারণা করা হচ্ছে হতাশা থেকে দুই সন্তানকে হত্যাচেষ্টা করে নিজেও আত্মহত্যার চেষ্টা করেছেন তিনি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও সংবাদ